রোয়াংছড়িতে ৪ সন্তান নিয়ে খ্রিস্টান হোস্টেল থেকে উধাও কেএনএফ নেতার স্ত্রী পাহাড়বার্তা রিপোর্ট ১৫ জুন ২০২৩ ৩:২৯ ঘটিকা

0 ১২৩

ডেস্ক রিপোর্টঃ
বান্দরবানের রোয়াংছড়ি উপজেলায় সন্ত্রাসী গ্রুপ কেএনএফ সদস্যদের ভয়ে প্রত্যন্ত এলাকার থেকে পালিয়ে এসে সিওসি বম হোস্টেলে আশ্রয় নেওয়া এক মহিলা মেসাংগী তংঞ্চঙ্গ্যা ওরফে জিরথান কিম বম কাউকে না জানিয়ে ৪ সন্তানকে নিয়ে গভীর রাতে পালিয়েছে বলে জানা গেছে। সকালে হোস্টেল সুপার রেবেকা বম তাদের খুঁজে না পেয়ে রোয়াংছড়ি থানায় সাধারণ ডায়রী করেন।

সূত্রে জানা যায়, মেসাংগী তংঞ্চঙ্গ্যা ওরফে জিরথান কিম বম প্রায় ১৮ বছর আগে খ্রিস্টান ধর্মে ধর্মান্তরিত হয়ে বর্তমানে কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ) এর সক্রিয় সদস্য রাঙ্গামাটি জেলার বিলাইছড়ি উপজেলা সাইজাম পাড়ার লাল রিন বম কারবারিকে বিয়ে করেন। তার স্বামী সশস্ত্র সন্ত্রাসী গ্রুপ কেএনএফ এর একজন সক্রিয় সদস্য। বর্তমানে চলমান যৌথ অভিযান এবং জনসম্মুখে নিজের সন্ত্রাসী পরিচয় প্রকাশ পাওয়ায় জীবন বাঁচানোর তাগিদে স্বদেশ ত্যাগ করে পাশ্ববর্তী দেশ ভারতের মিজোরামে পালিয়ে যায়।

স্বামীর এমন কর্মকান্ডে কোন উপায় না দেখে নিরুপায় হয়ে কারবারীর স্ত্রী মেসাংগী তংঞ্চঙ্গ্যা ওরফে জিরথান কিম বম গত সোমবার (১২জুন) সন্ধ্যায় দিকে এক মেয়ে জেনেত বম (১১) এবং তিন ছেলে আতং বম (৭), জেনবী বম (৫) রয়েল চিং লিয়েন বম (৩) কে নিয়ে রোয়াংছড়ি সিওসি বম হোস্টেলে আশ্রয়ের জন্য আসেন। মেসাংগী তংঞ্চঙ্গ্যা ওরফে জিরথান কিম বমের আসার কথা শুনে স্থানীয়রা এসে সিওসি বম হোস্টেলে তাকে থাকার ব্যবস্থা করে দেয়। এক রাত থাকার পর হোস্টেল কর্তৃপক্ষ জানতে পারে যে, তিনি একজন সশস্ত্র সন্ত্রাসী গ্রুপ কেএনএফ এর সক্রিয় সদস্যের স্ত্রী। জন সম্মুখে তার স্বামীর পরিচয়ের বিষয়টি জানাজানি হওয়ায় (১৩ জুন) রাতে ৪ সন্তানকে নিয়ে জিরথান কিম বম হোস্টেলের কাউকে না জানিয়ে গভীর রাতে পালিয়ে যায়।

আপনার ইমেইল প্রদর্শন করা হবে না।